জুতা কেনার টাকা না থাকায় স্কুলে যেতেন খালি পায়েই!

জুতা কেনার টাকা না থাকায় স্কুলে যেতেন খালি পায়েই!

ড. কে শিবনের জীবন, জীবনযু’দ্ধের গল্প শুনলে মনে হবে এটা কি সত্যি না কোনও ছবির চিত্রনাট্য! কলেজে পড়ার আগে পর্যন্ত কখনও পায়ে জুতো পরতে পারেননি ড. কে শিবন। স্কুলে যেতেন খালি পায়েই! কারণ? সামর্থ ছিল না জুতো কেনার। আর তিনিই এখন ইন্ডিয়ান স্পেস রিসার্চ অর্গানাইজেশন (ইসরো) বর্তমান চেয়ারম্যান।

 

কৃষক পরিবারের ছেলে শিবন পড়াশোনার শেষে প্রতিদিন বাবার সঙ্গে হাত লাগাতেন চাষের কাজে। বাবাকে সাহায্য করতে হবে বলে বাড়ির কাছের স্কুল-কলেজেই পড়াশোনা করেছেন।ড. কে শিবনের পড়াশোনা শুরু সরকারি তামিল ভাষার স্কুলে। বাবা গ্রীষ্মকালে আমের চাষ করতেন। পড়ার ফাঁকে ফাঁকে বাবার সঙ্গে আম বাগানে গাছেদের পরিচর্যার কাজ করতেন শিবন। ইঞ্জিনিয়ারিং পড়তে যাওয়ার আগে পর্যন্ত প্যান্ট কিনে দেওয়ার পয়সা ছিল না বাবার। তাই ধুতিই পরতেন শিবন।

 

স্কুলের গণ্ডি পেরনোর পর ইঞ্জিনিয়ারিং পড়তে চেয়েছিলেন শিবন। দারুণ রেজাল্টের জন্য তার শিক্ষকরাও চেয়েছিলেন তিনি ইঞ্জিনিয়ারিংই পড়ুন। কিন্তু আর্থিক অনটনের জন্য ম্যাথস-এ অনার্স করতে হয়। সূত্র: নিউজ ১৮।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© ২০১৯ | ভিউয়ার বাংলাদেশ কর্তৃক সর্বসত্ব ® সংরক্ষিত

Design BY NewsTheme