এবার কুরআনসহ ইসলামি বই আগুনে পুড়িয়ে ফেলার ঘোষণা দিল চীন!

কুরআন মুসলমানদের প্রধান ধর্মগ্রন্থ। ইসলাম ধর্ম মতে এটি আল্লাহর বাণী। ইসলামী ইতিহাস অনুসারে দীর্ঘ তেইশ বছর ধরে খণ্ড খণ্ড অংশে হযরত মুহাম্মদ (সাঃ) এর নিকট অবতীর্ণ হয় পবিত্র কুরআন। একজন মুসলমান হিসেবে অবশ্যই আমাদের কুরআন পড়া উচিৎ। কিন্ত এই পবিত্র কুরআনকে আগুনে পোড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে চীনের কম্যুনিস্টরা।

 

বুধবার (৪ নভেম্বর) এই সংবাদ নিশ্চিত করেছে চীনের উইঘুর মুসলিমরা।উইঘুর মুসলমানদের পক্ষে সোচ্চার মুহাম্মাদ খালিল নামের এক মুসলিম স্যোসালিস্ট নিজের টুইটার পেইজে লিখেছেন, চীনের উগ্রতাবাদী কম্যুনিস্টরা ইসলামি বইসহ ইসলাম ধর্মের সাথে সম্পৃক্ত মুসলিমদের সবকিছুকে আ’গুনে পোড়াতে চায়।

 

চীনের কম্যুনিষ্টদের কর্তৃত্বাধীন কারাগারে প্রায় ২০ লক্ষ উইঘুর মুসলিম আ’টক থাকার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, মুসলিমদের উপর ধ’র্ষণ ও অ’ত্যাচার থেকে রক্ষা পেতে ইতিমধ্যে অনেক উইঘুর মুসলিম নারী আ’ত্মহ’ত্যার পথ বেছে নিয়েছেন। প্রসঙ্গত, চীনের পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ শিনজিয়াং-এ বাস করে এক কোটিরও বেশি উইগর মুসলিম। অভিযো’গ উঠেছে বেইজিং সরকার ১০ লাখেরও বেশি মুসলিমকে ক্যাম্পে আ’টকে রেখে তাদের ওপর নি’র্যা’তন চালাচ্ছে।

মতামত দিতে চান?

Please enter your comment!
Please enter your name here