পদ্মার চেয়েও বড় সেতু হচ্ছে বাংলাদেশে

263
পড়েছে

দেশের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় সেতু হচ্ছে বাংলাদেশে। এ সেতুর মধ্য দিয়ে ভোলায় সম্প্রতি আবিস্কৃত গ্যাস খনির জন্য পাইপলাইন বসানো সম্ভব হবে। এছাড়া সেতুর নিচের অংশে নদীর মাঝখানের চরগুলোতে ইকোনমিক জোন গড়ে তোলার পথও সুগম হবে।

 

এ ব্যাপারে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বরিশাল-ভোলা সড়ক সেতুর সম্ভাব্যতা যাচাইয়ের কাজ শেষ হয়েছে। এখন ডিপিপি প্রণয়নের কাজ চলছে। অর্থায়নের ব্যাপারে কথাবার্তা হচ্ছে। চীন অর্থায়ন করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। নির্মাণকাজ শিগগিরই শুরু হবে।’

জানা যায়, বরিশালের লাহারহাট থেকে ভোলার ভেন্ডুরিয়া ফেরিঘাটকে সংযুক্ত করবে এ সেতু। সেতুতে স্প্যান বসবে ৫৮টি, অবস্থাভেদে এক একটি স্প্যানের দৈর্ঘ্য হবে ১১০-২০০ মিটার। সেতুর জন্য জমি অধিগ্রহণ করা হচ্ছে প্রায় ১৩০০ একর।ইআরডি সূত্র জানায়, প্রাথমিকভাবে প্রকল্পের প্রস্তাবিত ব্যয় নির্ধারণ করা হয়েছে ১২ হাজার ৯১৬ কোটি টাকা।

 

ইআরডির এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, ‘বরিশাল ও ভোলাকে সংযুক্ত করতে দেশের সবচেয়ে বড় সেতু নির্মাণ করা হবে। এটা সরকারের অন্যতম মেগা প্রকল্প। সেতুটি নির্মাণের জন্য আমরা উন্নয়ন সহযোগী খুঁজছি। ইতোমধেই কয়েকটি দেশ ও সংস্থাকে চিঠি দিয়েছি। বাংলাদেশ এখন ঋণ পরিশোধে অন্যতম। আশা করছি, খুব শিগগরিই এ কাজের উন্নয়ন সহযোগী খুঁজে পাওয়া যাবে। তবে, আমরা ঋণ নেওয়ার ক্ষেত্রে তাড়াহুড়ো করছি না, ধীর গতিতেই এগোচ্ছি।’

মতামত দিতে চান?

Please enter your comment!
Please enter your name here